31 C
Dhaka
Thursday, April 15, 2021

রিফাতের পর এবার প্রকাশ্যে নার্সকে কুপিয়ে মারল বখাটেরা

- Advertisement -
- Advertisement -

হাসপাতালে যাওয়া-আসার সময় দীর্ঘদিন ধরে নার্স তানজিনা আক্তারকে (২৪) উত্ত্যক্ত করতেন বখাটেরা। এই উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করায় ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠেন তারা। এরই ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবার (২০ জুন) সকালে হাসপাতালে যাওয়ার পথে বখাটেরা ওই নার্সকে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে। এক সপ্তাহ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকার পর মারা যান মেয়েটি।

বৃহস্পতিবার (২৭ জুন) সকাল ৮টার দিকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় নার্স তানজিনার মৃত্যু হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন ঠাকুরগাঁও সদর থানার উপ-পরিদর্শক মো. মোতাউজ্জামান। এ ঘটনায় মূল আসামিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
নিহত তানজিনা আক্তার (২৪) সদর উপজেলার সালন্দর ইউনিয়নের মাদ্রাসাপাড়া গ্রামের আব্দুল হামিদের মেয়ে। তিনি ওই ইউনিয়নের অবস্থিত গ্রামীণ চক্ষু হাসপাতালে নার্স হিসেবে চাকরি করতেন। গ্রেফতারকৃত আরমান হোসেন জীবন (১৯) সালন্দর ইউনিয়নের মাদ্রাসাপাড়া গ্রামের দেলোয়ার হোসেনের ছেলে।
এ ঘটনায় গত বৃহস্পতিবার (২০ জুন) কিশোরী তানজিনার বাবা আব্দুল হামিদ বাদী হয়ে আরমান হোসেন জীবন (১৯) সহ অজ্ঞাত আরও ৫ জনকে আসামি করে ঠাকুরগাঁও সদর থানায় একটি হত্যাচেষ্টার মামলা দায়ের করেন।
মামলার বরাতে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মোতাউজ্জামান বলেন, প্রতিদিন কিশোরী তানজিনা আক্তার বাড়ির পাশের চক্ষু হাসপাতালে যাতায়াত করার সময় প্রতিবেশী বখাটে আরমান হোসেন জীবন সহ তার কয়েকজন বন্ধু ওই কিশোরীকে উত্ত্যক্ত করত। আর এই উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করে কিশোরী তানজিনা আক্তার। এ কারণে ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে বখাটেরা।
গত বৃহস্পতিবার (২০ জুন) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে কিশোরী তানজিনা বাসা থেকে চক্ষু হাসপাতালে যাওয়ার সময় তার পথরোধ করে বখাটে আরমান হোসেন জীবন সহ তার কয়েকজন বন্ধু। এসময় কিশোরী তানজিনা চিৎকার শুরু করলে আরমান সহ তার বন্ধুরা ধারালো ছোড়া দিয়ে এলোপাতাড়িভাবে তাকে কুপিয়ে জখম করে। এসময় স্থানীয়রা এগিয়ে এলে বখাটেরা পালিয়ে যায়।
এসআই মোতাউজ্জামান বলেন, পরে স্থানীয় লোকজন রক্তাক্ত অবস্থায় কিশোরী তানজিনা আক্তারকে উদ্ধার করে ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করে চিকিৎসকরা। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার সকাল ৮টার দিকে কিশোরী তানজিনা মারা যান।
মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মোতাউজ্জামান বলেন, প্রথমে মামলাটি হত্যাচেষ্টার ধারায় রুজু করা হয়েছিল; এখন যেহেতু কিশোরী তানজিনা মারা গেছেন সেক্ষেত্রে এ মামলায় এখন হত্যার ধারা সংযুক্ত হবে।
মামলার তদন্ত চলছে এবং এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত অন্য আ
আরোও পড়ুনঃ
- Advertisement -

Latest news

হতাশ হয়ে পাকিস্তানে ফেরত যাচ্ছেন নাগরিকত্বের আশায় ভারতে আসা হিন্দু ও শিখরা!

আশাহত হয়ে পাকিস্তান ফিরে যাচ্ছেন মোদি সরকারের আমলে ভারতীয় নাগরিকত্ব পাওয়ার আশায় পাকিস্তান থেকে আসা হিন্দু ও শিখ শরণার্থীরা। করোনার কারণে আর্থিক ক্ষয়ক্ষতি ও...
- Advertisement -

যে গাছগুলোতে রয়েছে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা

যেসব গাছের এক বা একাধিক অংশ প্রাণীদের ক্ষেত্রে দরকারি ওষুধ হিসেবে ব্যবহৃত হয় তাকে ঔষধি গাছ বলে। গাছ যদি হয় বিভিন্ন রোগের ওষুধ, তখন...

হাজার কোটি টাকা দিলেও আর হিজাব ছাড়ব না : হালিমা ইডেন

ধর্মীয় বিশ্বাসের সাথে আপস করার জন্য চাপ অনুভব করার প্রেক্ষাপটে মুসলিম মডেল হালিমা ইডেন ফ্যাশন শো থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন। বুধবার ২৩ বছর...

ধর্ষকদের শাস্তি পুরুষাঙ্গ অকেজো, ইমরান খানের অনুমোদন!

ধর্ষণের শাস্তি হিসেবে মৃত্যুদণ্ড এবং রাসায়ানিক প্রয়োগের মাধ্যমে ধর্ষকের পুরুষাঙ্গ অকেজো (খোজাকরণ) করে দেয়ার বিধান রেখে দুটি অধ্যাদেশ অনুমোদন দিয়েছে পাকিস্তানে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিপরিষদ। মঙ্গলবার...

Related news

হতাশ হয়ে পাকিস্তানে ফেরত যাচ্ছেন নাগরিকত্বের আশায় ভারতে আসা হিন্দু ও শিখরা!

আশাহত হয়ে পাকিস্তান ফিরে যাচ্ছেন মোদি সরকারের আমলে ভারতীয় নাগরিকত্ব পাওয়ার আশায় পাকিস্তান থেকে আসা হিন্দু ও শিখ শরণার্থীরা। করোনার কারণে আর্থিক ক্ষয়ক্ষতি ও...

যে গাছগুলোতে রয়েছে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা

যেসব গাছের এক বা একাধিক অংশ প্রাণীদের ক্ষেত্রে দরকারি ওষুধ হিসেবে ব্যবহৃত হয় তাকে ঔষধি গাছ বলে। গাছ যদি হয় বিভিন্ন রোগের ওষুধ, তখন...

হাজার কোটি টাকা দিলেও আর হিজাব ছাড়ব না : হালিমা ইডেন

ধর্মীয় বিশ্বাসের সাথে আপস করার জন্য চাপ অনুভব করার প্রেক্ষাপটে মুসলিম মডেল হালিমা ইডেন ফ্যাশন শো থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন। বুধবার ২৩ বছর...

ধর্ষকদের শাস্তি পুরুষাঙ্গ অকেজো, ইমরান খানের অনুমোদন!

ধর্ষণের শাস্তি হিসেবে মৃত্যুদণ্ড এবং রাসায়ানিক প্রয়োগের মাধ্যমে ধর্ষকের পুরুষাঙ্গ অকেজো (খোজাকরণ) করে দেয়ার বিধান রেখে দুটি অধ্যাদেশ অনুমোদন দিয়েছে পাকিস্তানে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিপরিষদ। মঙ্গলবার...
- Advertisement -