18 C
Dhaka
Tuesday, January 19, 2021

রক্তের গ্রুপ বদলে দিল ‘সিটি ল্যাব’

- Advertisement -
- Advertisement -

নগরের পাঁচলাইশ হামজারবাগ এলাকার সিটি ল্যাব ডায়াগনস্টিক সেন্টার থেকে রক্তের গ্রুপের ভুল ফলাফল দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে।

রোববার (৩০ জুন) রাতে ড্রাইভিং লাইসেন্সের আবেদনের জন্য আহমেদ জুবায়ের অনিক নামে এক যুবক সিটি ল্যাবে রক্তের গ্রুপ নির্ণয় করতে যান। ওইদিন রাতে রিপোর্ট নেওয়ার পর অনিক দেখেন তার রক্তের গ্রুপ ‘বি পজেটিভ’ লেখা আছে। অথচ অনিকের রক্তের গ্রুপ ‘এ পজেটিভ’। দীর্ঘদিন স্বেচ্ছায় রক্তদানের কারণে সেটি তিনি জানেন।

আহমেদ জুবায়ের অনিক বাংলানিউজকে বলেন, রিপোর্ট হাতে পাওয়ার পর আমি অবাক হই। এরপর সিটি ল্যাব ডায়াগনস্টিক সেন্টার গিয়ে বিষয়টি জানালে তারা উল্টো আমার কাছ থেকে টাকা দাবি করে। পরে নতুন রিপোর্ট না নিয়ে চলে আসি।
খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, সিটি ল্যাব ডায়াগনস্টিক সেন্টারের লাইসেন্স ত্রুটিপূর্ণ। প্রতিষ্ঠান লাইসেন্সের জন্য আবেদন করলেও এখনো অনুমোদন পায়নি। এ ছাড়া প্রতিষ্ঠানটির চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের বাণিজ্যিক অনুমোদনও নেয়নি।

এ ব্যাপারে সিটি ল্যাব ডায়াগনস্টিক সেন্টারের মালিক মমিনুল হক বাংলানিউজকে বলেন, এক ব্যক্তির রক্তের গ্রুপ নির্ণয়ে ভুল হয়েছে। পরে ওই ব্যক্তির সঙ্গে সমঝোতা হয়েছে।

লাইসেন্সের ব্যাপারে জানতে চাইলে মমিনুল হক বলেন, নতুন করে অনলাইনে আবেদন করতে হচ্ছে। অনেক আগে আবেদন করা হয়েছে।

সিভিল সার্জন ডা. আজিজুর রহমান সিদ্দিকী বাংলানিউজকে বলেন, এটি দুঃখজনক ঘটনা। তবে অভিযোগ না পেলে আমরা তদন্ত করতে পারি না। এজন্য ভুক্তভোগী কিংবা পক্ষে অভিযোগ দিতে হবে। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

লাইসেন্স ত্রুটিপূর্ণের ব্যাপারে সিভিল সার্জন বলেন, বিষয়টি আমার জানা নেই। তবে শিগগির ওই প্রতিষ্ঠানে পরিদর্শন টিম পাঠানো হবে। অনিয়ম পেলে তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বাংলানিউজ২৪ এর সৌজন্যে

- Advertisement -

Latest news

হতাশ হয়ে পাকিস্তানে ফেরত যাচ্ছেন নাগরিকত্বের আশায় ভারতে আসা হিন্দু ও শিখরা!

আশাহত হয়ে পাকিস্তান ফিরে যাচ্ছেন মোদি সরকারের আমলে ভারতীয় নাগরিকত্ব পাওয়ার আশায় পাকিস্তান থেকে আসা হিন্দু ও শিখ শরণার্থীরা। করোনার কারণে আর্থিক ক্ষয়ক্ষতি ও...
- Advertisement -

যে গাছগুলোতে রয়েছে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা

যেসব গাছের এক বা একাধিক অংশ প্রাণীদের ক্ষেত্রে দরকারি ওষুধ হিসেবে ব্যবহৃত হয় তাকে ঔষধি গাছ বলে। গাছ যদি হয় বিভিন্ন রোগের ওষুধ, তখন...

হাজার কোটি টাকা দিলেও আর হিজাব ছাড়ব না : হালিমা ইডেন

ধর্মীয় বিশ্বাসের সাথে আপস করার জন্য চাপ অনুভব করার প্রেক্ষাপটে মুসলিম মডেল হালিমা ইডেন ফ্যাশন শো থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন। বুধবার ২৩ বছর...

ধর্ষকদের শাস্তি পুরুষাঙ্গ অকেজো, ইমরান খানের অনুমোদন!

ধর্ষণের শাস্তি হিসেবে মৃত্যুদণ্ড এবং রাসায়ানিক প্রয়োগের মাধ্যমে ধর্ষকের পুরুষাঙ্গ অকেজো (খোজাকরণ) করে দেয়ার বিধান রেখে দুটি অধ্যাদেশ অনুমোদন দিয়েছে পাকিস্তানে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিপরিষদ। মঙ্গলবার...

Related news

হতাশ হয়ে পাকিস্তানে ফেরত যাচ্ছেন নাগরিকত্বের আশায় ভারতে আসা হিন্দু ও শিখরা!

আশাহত হয়ে পাকিস্তান ফিরে যাচ্ছেন মোদি সরকারের আমলে ভারতীয় নাগরিকত্ব পাওয়ার আশায় পাকিস্তান থেকে আসা হিন্দু ও শিখ শরণার্থীরা। করোনার কারণে আর্থিক ক্ষয়ক্ষতি ও...

যে গাছগুলোতে রয়েছে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা

যেসব গাছের এক বা একাধিক অংশ প্রাণীদের ক্ষেত্রে দরকারি ওষুধ হিসেবে ব্যবহৃত হয় তাকে ঔষধি গাছ বলে। গাছ যদি হয় বিভিন্ন রোগের ওষুধ, তখন...

হাজার কোটি টাকা দিলেও আর হিজাব ছাড়ব না : হালিমা ইডেন

ধর্মীয় বিশ্বাসের সাথে আপস করার জন্য চাপ অনুভব করার প্রেক্ষাপটে মুসলিম মডেল হালিমা ইডেন ফ্যাশন শো থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন। বুধবার ২৩ বছর...

ধর্ষকদের শাস্তি পুরুষাঙ্গ অকেজো, ইমরান খানের অনুমোদন!

ধর্ষণের শাস্তি হিসেবে মৃত্যুদণ্ড এবং রাসায়ানিক প্রয়োগের মাধ্যমে ধর্ষকের পুরুষাঙ্গ অকেজো (খোজাকরণ) করে দেয়ার বিধান রেখে দুটি অধ্যাদেশ অনুমোদন দিয়েছে পাকিস্তানে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিপরিষদ। মঙ্গলবার...
- Advertisement -