31 C
Dhaka
Thursday, April 15, 2021

মানব রচিত সংবিধান দ্বারা কখনো শান্তি প্রতিষ্ঠা হতে পারেনা: আল্লামা বাবুনগরী

- Advertisement -
- Advertisement -

মুসলমানরা ধর্মীয় শিক্ষা থেকে দূরে সরার কারনেই ইসলাম বিদ্বেষীরা মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে মন্তব্য করেছেন হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের মহাসচিব আল্লামা হাফেজ জুনায়েদ বাবুনগরী। তিনি বলেন, আমরা ধর্মীয় শিক্ষা গ্রহণ করিনা বলেই নাস্তিক-বিদ্বেষীরা মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে।

তাদের দমন করতে হবে, তারাই ইসলামের সবচেয়ে বড় শত্রু। তারা ধর্মের নামে কটুক্তি করবে, নবী-রাসুলকে গালি দিবে, এদেশের তাওহীদী জনতা তা সহ্য করবে না। তাদেরকে চিহ্নিত করতে হবে এবং সর্বোচ্চ বিচারের আওতায় আনতে হবে।

গতকাল (১৯শে মার্চ) সোমবার নোয়াখালী জেলা সর্বস্তরের ওলামায়ে কেরামের উদ্যোগে আয়োজিত তাফসীরুল কুরআন মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, ইসলামে পূর্ণাঙ্গ জীবন ব্যবস্থা রয়েছে, আপনাকে তা বুঝতে হবে। ইসলামে ধর্মীয় শিক্ষাকে বাধ্যতামূলক করা হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, আজ কোথাও শান্তি নেই, সবজায়গায় অশান্তি। আপনারা ইতিহাস পর্যালোচনা করে দেখুন, রাসুল সা. ও সাহাবায়ে কেরামের যুগে কোনো অশান্তি ছিল না। কারন তাঁরা আল্লাহ’র দেয়া সংবিধান অনুযায়ী রাষ্ট্র পরিচালনা করেছেন। খোদায়ী সংবিধান বাদ দিয়ে মানব রচিত সংবিধান দ্বারা কখনো শান্তি প্রতিষ্ঠা হতে পারেনা।

সুত্র: ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম

- Advertisement -

Latest news

হতাশ হয়ে পাকিস্তানে ফেরত যাচ্ছেন নাগরিকত্বের আশায় ভারতে আসা হিন্দু ও শিখরা!

আশাহত হয়ে পাকিস্তান ফিরে যাচ্ছেন মোদি সরকারের আমলে ভারতীয় নাগরিকত্ব পাওয়ার আশায় পাকিস্তান থেকে আসা হিন্দু ও শিখ শরণার্থীরা। করোনার কারণে আর্থিক ক্ষয়ক্ষতি ও...
- Advertisement -

যে গাছগুলোতে রয়েছে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা

যেসব গাছের এক বা একাধিক অংশ প্রাণীদের ক্ষেত্রে দরকারি ওষুধ হিসেবে ব্যবহৃত হয় তাকে ঔষধি গাছ বলে। গাছ যদি হয় বিভিন্ন রোগের ওষুধ, তখন...

হাজার কোটি টাকা দিলেও আর হিজাব ছাড়ব না : হালিমা ইডেন

ধর্মীয় বিশ্বাসের সাথে আপস করার জন্য চাপ অনুভব করার প্রেক্ষাপটে মুসলিম মডেল হালিমা ইডেন ফ্যাশন শো থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন। বুধবার ২৩ বছর...

ধর্ষকদের শাস্তি পুরুষাঙ্গ অকেজো, ইমরান খানের অনুমোদন!

ধর্ষণের শাস্তি হিসেবে মৃত্যুদণ্ড এবং রাসায়ানিক প্রয়োগের মাধ্যমে ধর্ষকের পুরুষাঙ্গ অকেজো (খোজাকরণ) করে দেয়ার বিধান রেখে দুটি অধ্যাদেশ অনুমোদন দিয়েছে পাকিস্তানে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিপরিষদ। মঙ্গলবার...

Related news

হতাশ হয়ে পাকিস্তানে ফেরত যাচ্ছেন নাগরিকত্বের আশায় ভারতে আসা হিন্দু ও শিখরা!

আশাহত হয়ে পাকিস্তান ফিরে যাচ্ছেন মোদি সরকারের আমলে ভারতীয় নাগরিকত্ব পাওয়ার আশায় পাকিস্তান থেকে আসা হিন্দু ও শিখ শরণার্থীরা। করোনার কারণে আর্থিক ক্ষয়ক্ষতি ও...

যে গাছগুলোতে রয়েছে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা

যেসব গাছের এক বা একাধিক অংশ প্রাণীদের ক্ষেত্রে দরকারি ওষুধ হিসেবে ব্যবহৃত হয় তাকে ঔষধি গাছ বলে। গাছ যদি হয় বিভিন্ন রোগের ওষুধ, তখন...

হাজার কোটি টাকা দিলেও আর হিজাব ছাড়ব না : হালিমা ইডেন

ধর্মীয় বিশ্বাসের সাথে আপস করার জন্য চাপ অনুভব করার প্রেক্ষাপটে মুসলিম মডেল হালিমা ইডেন ফ্যাশন শো থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন। বুধবার ২৩ বছর...

ধর্ষকদের শাস্তি পুরুষাঙ্গ অকেজো, ইমরান খানের অনুমোদন!

ধর্ষণের শাস্তি হিসেবে মৃত্যুদণ্ড এবং রাসায়ানিক প্রয়োগের মাধ্যমে ধর্ষকের পুরুষাঙ্গ অকেজো (খোজাকরণ) করে দেয়ার বিধান রেখে দুটি অধ্যাদেশ অনুমোদন দিয়েছে পাকিস্তানে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিপরিষদ। মঙ্গলবার...
- Advertisement -