মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে চলমান লকডাউনে কর্মহীন হয়ে পড়েছে হতদরিদ্র মানুষজন। কোনো ধরনের ত্রাণ না পেয়ে শনিবার দুপুর ২টায় ত্রাণের দাবিতে উপজেলার ভানুগাছ বাজার, শ্রীনাথপুর, ঠাকুরবাজার,আলীনগর, কুমড়াকাপনসহ বিভিন্ন স্থান এলাকা থেকে আসা অর্ধশতাধিক স্বামীহারা, স্বামী পরিত্যক্তাসহ কর্মহীন হতদরিদ্র নারী-পুরুষ কমলগঞ্জ উপজেলা পরিষদ চত্বরে অবস্থান নেন। এ সময় তারা ত্রাণের দাবি নিয়ে উপজেলা পরিষদের বারান্দায় বসে থাকেন। তবে ঘণ্টাব্যাপী অবস্থান নিলেও কাউকে না পেয়ে হতাশ হয়ে খালি হাতেই ফিরে যান তারা।

পরিষদ চত্বরে জড়ো হওয়া অবস্থানরত হাসি বেগম, হুসনা বেগম, রিমা মালাকারসহ কয়েকজন জানান, আমরা বিচ্ছিন্নভাবে এখানে কয়েকদিন এসেছি। আমাদের সাথে কেউ দেখা বা কথা ও বলেনি। লকডাইনে কাজ না করায় ঘরের খাবার ফুরিয়ে গেছে। নিরুপায় হয়ে কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অফিস চত্বরে অবস্থান নেই।

সহকারী কমিশনার (ভূমি) নাসরিন চৌধুরী বলেন, তাদেরকে সহায়তা দেওয়ার জন্য প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ ত্রাণ সামগ্রী পৌরসভাসহ সকল ইউনিয়ন পরিষদে দেওয়া হয়েছে। এখানে তাদেরকে সহযোগিতা করার জন্য আমাদের নিকট কিছু নেই।

কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আশেকুল হক বলেন, ২ দিন ধরে এখানে এসে জড়ো হচ্ছেন হতদরিদ্ররা। তাদেরকে বলা হয়েছে উপজেলায় ত্রাণ নেই। সরকারে খাদ্য সামগ্রী পৌরসভাসহ সকল ইউনিয়ন পরিষদে ত্রাণ পৌঁছে দেওয়া হয়েছে।